| |

সেনাবাহিনীকে বিচারিক ক্ষমতা দেওয়া ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচন সম্ভব নয়

প্রকাশিতঃ ৫:৫১ অপরাহ্ণ | ডিসেম্বর ০৬, ২০১৮

আইএবি নিউজ : নির্বাচনের সময় যতই ঘনিয়ে আসছে দেশের সাধারণ জনগণের মধ্যে নির্বাচন নিয়ে ততই বেশী আতংক সৃষ্টি হচ্ছে। একটি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচনের পরিবেশ সৃষ্টি করতে ইসি সম্পূর্ণ ভাবে ব্যর্থ হচ্ছে।

আজ ৬ই ডিসেম্বর (বৃহস্পতিবার) এক বিবৃতিতে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ এর আমীর মুফতি সৈয়দ মুহাম্মাদ রেজাউল করীম (পীর সাহেব চরমোনাই) উপর্যুক্ত কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, স্বাধীন দেশে এদেশের মানুষ কখনই পূর্ণভাবে তাদের ভোটাধিকার ফিরে পায়নি। আর তার চরম রূপ ধারণ করেছে সম্প্রতি সময়ে। ক্ষমতাসীনরা চাচ্ছে আবারো ৫ ই জানুয়ারীর মতো নির্বাচন দিয়ে জাতিকে কলংকিত করতে। তাদের এই হেন অপকর্মের সহযোগিতায় ঘৃণ্যভাবে লিপ্ত হয়েছে ইসি এবং প্রশাসন।

এমতাবস্থায় জাতির গৌরব সেনাবাহিনীকে বিচারিক ক্ষমতা দেওয়া ছাড়া সুষ্ঠু নির্বাচনের পরিবেশ আশা করা যায়না। দেশী-বিদেশি পর্যবেক্ষকদের নির্বাচন পর্যবেক্ষণের ক্ষেত্রে ইসির দেওয়া বাধ্যবাধকতা নির্বাচনকে আরো হাস্যকর করবে।

পীর সাহেব চরমোনাই আরো বলেন, দেশের সাধারণ জনগণের পিঠ দেয়ালে ঠেকে গেছে, তাই সরকার যতই ষড়যন্ত্র করুক না কেন জনগণ তা প্রতিহত করবে ইনশাআল্লাহ। এমতাবস্থায় তিনি দেশ, মানবতা ও ইসলামের পক্ষে হাতপাখার প্রার্থীদের বিজয় করার জন্য দেশবাসীর প্রতি আহবান জানান।

0Shares