| |

বিপ্লবী চেতনায় উজ্জীবিত সৈনিকরা আগামী নির্বাচনে কান্ডারীর ভূমিকায় অবতীর্ণ হবে

প্রকাশিতঃ ৯:৫৪ পূর্বাহ্ণ | নভেম্বর ০৩, ২০১৮

বর্তমান সমাজ ও রাষ্ট্র ব্যবস্থায় প্রতিষ্ঠিত দুর্নীতি ও আল্লাহর নাফরমানীর প্রতিযোগীতা চলছে। দুর্নীতিগ্রস্থ এই রাষ্ট্রকে  কল্যাণ রাষ্ট্রে পরিণত করার লক্ষে কওমি মাদরাসার ছাত্রদেরকে সাহাবায়ে কেরামের মতো ইসলামী বিপ্লবের চেতনায় উজ্জীবিত হয়ে অাগামী একাদশ জাতীয় নির্বাচনে কান্ডারির ভূমিকায় অবতীর্ণ হতে হবে।

শুক্রবার (২ নভেম্বর’১৮) ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন-এর উদ্যোগে আয়োজিত কওমি মাদরাসা প্রতিনিধি সম্মেলন ২০১৮-এ ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর যুগ্ম মহাসচিব অধ্যাপক মাহবুবুর রহমান উপর্যুক্ত কথা বলেন।

ইশা ছাত্র আন্দোলন-এর কেন্দ্রীয় সভাপতি শেখ ফজলুল করীম মারুফ-এর সভাপতিত্বে এবং কেন্দ্রীয় কওমি মাদরাসা সম্পাদক ইউসুফ আহমাদ মানসুর-এর সঞ্চালনায়  সভাপতির বক্তব্যে তিনি বলেন, কওমি মাদরাসার গৌরবময় ইতিহাস ও ঐতিহ্য রয়েছে । কিন্তু কওমি মাদরাসার ঐতিহ্যের ধারক-বাহক দাবী করে কেউ যদি কওমি মাদরাসার ঐতিহ্যে কলঙ্ক লেপন করতে চায়, তবে সেটা ছাত্র-জনতা কখনোই মেনে নেবে না। এজন্য  কওমি শিক্ষার্থীদের সতর্ক থাকতে হবে। জ্ঞান,মেধা, উন্নয়ন ও দেশপ্রেমে উজ্জীবিত হয়ে ইসলামী রাষ্ট্র গঠনের জন্য সু-শৃঙ্খলভাবে সাংগঠনিক কাজ করার ও আহ্বান জানান।

সম্মেলনে প্রতিনিধিদের কাছ থেকে বিগত ৬ মাসের প্রতিবেদন গ্রহণ করে আগামী ৬ মাসের ষান্মাসিক কর্মপরিকল্পনা দেয়া হয়।

উক্ত সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ-এর কেন্দ্রীয় প্রশিক্ষণ সম্পাদক মাওলানা মকবুল হোসাইন এবং সহ-প্রশিক্ষণ সম্পাদক মুফতি হেমায়েতুল্লাহ।

বিষয়ভিত্তিক বক্তব্য রাখেন ইশা ছাত্র আন্দোলন-এর কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি শেখ মুহাম্মাদ সাইফুল ইসলাম এবং সেক্রেটারি জেনারেল এম. হাছিবুল ইসলাম।

সম্মেলনে আরোও উপস্থিত ছিলেন ইশা ছাত্র আন্দোলন-এর জয়েন্ট সেক্রেটারি জেনারেল এস.এম এমদাদুল্লাহ ফাহাদ, কেন্দ্রীয় সাহিত্য ও সংস্কৃতি সম্পাদক সাইফ মুহাম্মাদ সালমান প্রমুখ।

 

400Shares