| |

খুলনা সিটি নির্বাচনে ব্যাপক কারচুপি: মাত্র দুই ঘন্টায় হাতপাখায় ১৪৩৬৩ ভোট!

প্রকাশিতঃ ১:৩০ অপরাহ্ণ | মে ১৬, ২০১৮

শেখ নাসির উদ্দিন, খুলনা প্রতিনিধিঃ গতকাল (১৫ মে) অনুষ্ঠিত হয়ে গেল খুলনা সিটি কর্পোরেশনের নির্বাচন। নির্বাচনে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত মেয়র প্রার্থী সহ মোট ৫ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বীতা করেন। সকাল ৮টা থেকে যথারীতি ভোট গ্রহণ শুরু হয়ে সকাল ১০টা পর্যন্ত শান্তিপূর্ণভাবেই ভোট গ্রহণ চলছিল, দুপুরের পরপরই ক্ষমতাসীন দলের কর্মীরা প্রশাসনের সহযোগিতায় একের পর এক কেন্দ্র দখল করে, পোলিং এজেন্টদের বের করে দিয়ে, জাল ভোটের ছড়াছড়ি শুরু হয়। ইসলামী আন্দোলনের মেয়র প্রার্থীর এজেন্টদেরকে হুমকি প্রদান, তাদেরকে ভোট কেন্দ্র থেকে বের করা সহ ভোট প্রদান থেকে বিরত রাখা হয়। এমনকি ইসলামী আন্দোলনের সমর্থিত ২৭নং ওয়ার্ড  কাউন্সিলর প্রার্থী সুমন নিজে সহ পরিবারের কেউ ভোট দিতে পারেননি। ভোট দিতে যেয়ে দেখা যায়  ব্যালট পেপার শেষ। প্রিজাইডিং অফিসারকে অভিযোগ দিয়েও কোন কাজ হয়নি। বিভিন্ন কেন্দ্র ঘুরে দেখা গেছে অধিকাংশ কেন্দ্রে ছিল ভোটার শূণ্য। ব্যালট পেপারে আগে থেকেই নৌকার ছিলমারা ছিলো। দুপুর ৩টা পর্যন্ত প্রায় বুথে ১০০ ভোটও কাস্ট হয়নি।  নির্বাচনের এই অনিয়ম দেখে ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত মেয়র প্রার্থী অধ্যক্ষ মাওঃ মুজ্জাম্মিল হক বিকাল সাড়ে পাঁচটায় দলীয় কার্যালয়ে সাংবাদিকদের প্রেসব্রিফিং করেন এবং প্রহসনের নির্বাচনের তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ  জানান।

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনে এত কারচুপির পরও ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মনোনীত মেয়র প্রার্থী মাত্র দুই ঘন্টার শান্তিপূর্ণ নির্বাচনে ১৪৩৬৩ ভোট পেয়ে তৃতীয় অবস্থানে রয়েছেন।

মোট ভোট কেন্দ্র ২৮৯ টি, তিনটি কেন্দ্র স্থগিত রয়েছে। অন্য প্রার্থীরা ভোট পেয়েছেন যথাক্রমে- আওয়ামীলীগ (নৌকা) ১৭৪৮৫১, বিএনপি (ধানের শিষ) ১০৯২৫১, ইসলামী আন্দোলন (হাতপাখা) ১৪৩৬৩, জাতীয় পার্টি (লাঙ্গল) ১০৭২, কমিউনিষ্ট (কাস্তে) ৫৩৪ ভোট।

3204Shares