| |

উদ্বোধনী বয়ানের মধ্য দিয়ে চরমোনাইর বাৎসরিক মাহফিল শুরু

প্রকাশিতঃ ৭:৪৫ অপরাহ্ণ | মার্চ ০৭, ২০১৮

আইএবি নিউজ : আমীরুল মুজাহিদীন আলহাজ্ব হযরত মাওলানা মুফতী সৈয়দ মুহা. রেজাউল করীম শায়েখ চরমোনাইর উদ্বোধনী বয়ানের মধ্যদিয়ে বুধবার (৭ মার্চ) বাদ যোহর আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয়েছে দেশের দ্বিতীয় বৃহত্তম চরমোনাইর ফাল্গুনের ৩ দিন ব্যাপি বাৎসরিক মাহফিল। উদ্ভোধনী বয়ানে শায়েখ চরমোনাই বলেন, আল্লাহ ও তার রাসুলের সন্তষ্টি অর্জন করাই মানব জীবনের একমাত্র লক্ষ, জীবনের প্রতিটি স্তরে ইসলামী আদর্শ বাস্তবায়ন করলেই এ লক্ষ অর্জন করা সম্ভব। এছাড়াও আল্লাহ ও তার রাসুলের সন্তুষ্টি অর্জনে করনীয় ও বর্জনীয় বিষয়বলী শিক্ষা দেয়া হয় এই মাহফিলে। মন্দ স্বভাব ও কু-রিপু দুর করে আত্মশুদ্ধির মাধ্যমে আল্লাহ ভোলা বান্দারা কিভাবে আলাহর সাথে মিলিত হতে পারে সে পথ বাতলে দেয়াই মাহ্ফিলের উদ্দেশ্য।

ঐতিহাসিক চরমোনাই ফালগুনের বার্ষিক মাহফিল কীর্তনখোলা নদীর তীরবর্তি চরমোনাই মাদরাসার সুপ্রস্থ ৫টি মাঠ সহ আশপাশে বৃহত্তর ময়দান গত দুদিন আগেই কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায়। লক্ষ লক্ষ মুসল্লির আল্লাহ আল্লাহ জিকীরের ধ্বনীতে মুখরিত হয়েছে গোটা চরমোনাই এলাকা। শত শত বাস, লঞ্চ, ট্রলার দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে জনস্রোত এখন ছুটে আসছে চরমোনাই অভিমূখে। মাহফিলের পরিচালনা কমিটির প্রধান ও আলিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওঃ মোছাদ্দেক বিলাহ মাদানী জানান, মাহফিলে প্রদত্ত বয়ান সমূহ যাতে সকলে সুন্দর ভাবে শুনতে পারে সেজন্য সম্পূর্ণ নিজস্ব ব্যাবস্থাপণায় বিশ হাজার মাইক, চলিশ হাজার বৈদুত্যিক বাতি লাগানো হয়েছে। পল্লী বিদ্যুৎ সরবরাহ না থাকা কালীন বিদ্যুৎ ব্যাবস্থা স্বাভাবিক রাখতে জেনারেটরের সার্বক্ষনিক প্রস্তুত রয়েছে। এছাড়াও নিজস্ব গভীর নলকুপের মাধ্যমে উত্তেলিত বিশুদ্ধ খাবার পানি সরবরাহের জন্য ব্যাবস্থা ও মুসুল্লীদের ওজু গোসল করার জন্য সুব্যবস্থা করেছেন। পয়োনিস্কাশনের জন্য রয়েছে কাঁচা-পাঁকা টয়লেটের ব্যাবস্থা। মাহফিলে আগত মুজাহিদ ও মুসুল্লিগণ খাওয়া দাওয়ার ব্যাবস্থা নিজেরাই আয়োজন করে থাকেন। এককভাবে যারা মাহফিলে আসেন তাদের খাওয়া-দাওয়ার সুবিধার্থে রয়েছে কয়েক হাজার হোটেলের ব্যাবস্থা। মহফিলের শৃংখলা ও নিরাপত্তা রক্ষায় রয়েছে সেচ্ছা সেবক বাহিনী, মাদরাসার ছাত্র, র‌্যাব-পুলিশ-গোয়েন্দা সংস্থার কর্মীরা। মুসুল্লিদের মধ্যে যদি কেউ অসুস্থ হয়ে পড়েন, তাদের চিকিৎসার জন্য নিয়জিত রয়েছে শায়েখ চরমোনাই-এর পরিচালিত “আল-কারীম জেনারেল হাসপাতাল”-এর ডাক্তাররা। এখানে এমবিএস ডাক্তার ও প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত স্বাস্থ্যকর্মী দায়িত্ব পালন করবে।

0Shares