| |

ইসলামী যুব আন্দোলনের সাহিত্য-সাংবাদিকতা প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত

প্রকাশিতঃ ২:৫৯ অপরাহ্ণ | এপ্রিল ২০, ২০১৮

ইসলামী যুব আন্দোলন ঢাকা মহানগর দক্ষিণের উদ্যোগে পল্টনস্থ আইএবি মিলনায়তনে আজ (শুক্রবার) এক সাহিত্য-সাংবাদিকতা প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। নগর দক্ষিণের সভাপতি মুফতি মানসুর আহমদ সাকীর সভাপতিত্বে শিক্ষা ও সংস্কৃতি সম্পাদক এইচ এম আবু বকরের সঞ্চালনায় প্রশিক্ষণ সোস্যাল মিডিয়ার সুষ্ঠু ব্যাবহার সম্পর্কে আলোচনা করেন ইসলামী যুব আন্দোলনের কেন্দ্রীয় সভাপতি কে এম আতিকুর রহমান।

তিনি তার আলোচনায় সোস্যাল মিডিয়ার ব্যবহারের ক্ষেত্রে উদার, সত্যসন্ধানী এবং সুন্দরের প্রচারক হওয়ার ব্যপারে নির্দেশনা প্রদান করেন। বাতিলের নোংরা আগ্রাসনের মোকাবেলায় সত্য ও সুন্দরের প্রচার নিয়ে অগ্রসর হবার পরামর্শ প্রদান করেন।

“কী লিখবো? কেন লিখবো?” শিরোনামে  আলোচনা করেন বাংলাদেশ ইসলামী লেখক ফোরামের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মুনিরুল ইসলাম। তিনি তার আলোচনায় বলেন, নামাজ, রোজা, হজ, যাকাতের মত লেখালেখিও একটা মহান ইবাদত। কারণ, কুরআনে অবতীর্ণ প্রথম সূরাতেই আল্লাহ রাব্বুল আলামিন অধ্যায়ন  ও লেখালেখির ব্যাপারে উৎসাহিত করেছেন। সুতরাং ন্যায়নিষ্ঠ সাংবাদিকতা মহান এক ইবাদাত।

এছাড়াও “সাংবাদিকতার কলাকৌশল” নিয়ে আলোচনা করেন বাংলানিউজ ২৪.কমের সিনিয়র বিভাগীয় সম্পাদক মুফতি এনায়েতুল্লাহ। তিনি তার আলোচনায় বস্তুনিষ্ঠ সাংবাদিকতার পেশায় সকলকে  উৎসাহিত করেন। এবং গণমাধ্যমে আলেমদের কৌশলী হয়ে অগ্রসর হবার পরামর্শ দেন।

এছাড়াও অন্যান্যদের মধ্যে আলোচনা করেন ইসলামী যুব আন্দোলনের সেক্রেটারি জেনারেল মাওলানা নেসার উদ্দীন, কেন্দ্রীয় শিক্ষা ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক মুফতি হুসাইন মুহাম্মদ কাওসার বাঙালী। সংক্ষিপ্ত উপদেশ ও দোয়া মোনাজাতের মাধ্যমে কর্মশালার সমাপনী করেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের মুহতারাম মহাসচিব অধ্যক্ষ হাফেজ মাওলানা ইউনুস আহমদ সাহেব (দাঃবাঃ)। তিনি এধরনের প্রোগ্রামের আয়োজনে খুশি প্রকাশ করে মিডিয়ায় ইসলামপন্থীদের উজ্জ্বল ভবিষ্যৎ বিনির্মাণে আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

265Shares